পুত্র সন্তান লাভের দোয়া ও আমল, সহবাসের শেষে দোয়া, সহবাসের আগে ও পরের দোয়া, সহবাসের দোয়া, স্ত্রী সহবাসের পূর্বে এই দোয়াটি পড়লে নেককার সন্তান হবে ইনশাআল্লাহ্
আল্লাহ তায়ালা বিবাহের মাধ্যমে নারী -  পুরুষের যৌনতা ও বংশ বৃদ্ধি কে কল্যাণের কাজে পরিণত করেছেন। বিবাহের ফলে স্বামী স্ত্রীর যাবতীয় বৈধ কার্যক্রম হয়ে ওঠে কল্যাণ ও ছাওয়াবের কাজ। ছবি সংগৃহীত


স্ত্রী সহবাসের পূর্বে এই দোয়াটি পড়লে নেককার সন্তান হবে ইনশাআল্লাহ্

আসসালমুআলাইকুম। আপনাকে স্বাগতম।
আল্লাহ তায়ালা বিবাহের মাধ্যমে নারী -  পুরুষের যৌনতা ও বংশ বৃদ্ধি কে কল্যাণের কাজে পরিণত করেছেন। বিবাহের ফলে স্বামী স্ত্রীর যাবতীয় বৈধ কার্যক্রম হয়ে ওঠে কল্যাণ ও ছাওয়াবের কাজ। বংশ বৃদ্ধির একমাত্র মাধ্যম হচ্ছে স্বামী স্ত্রীর সহবাস । এর রয়েছে ১ টি দোয়া। 

দোয়াটি শুরু করার আগে আমরা ফযীলত জেনে নেই। 
হযরত আবদুল্লাহ ইবনে আব্বাস রাদয়াল্লাহু আনহু হতে বর্ণিত রাসলুল্লাহ সাল্লাল্লহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম বলেছেন যখন তোমাদের কেউ আপন স্ত্রীর সঙ্গে মিলিত হওয়ার ইচ্ছা করে তখন এই দোয়াটি পড়ে যেন মিলিত হয় । এ মিলনে যদি তাদের কিসমতে কোনো সন্তান আসে, সে সন্তানকে শয়তান কোনো ক্ষতি করতে পারবে না। ( বোখারী, মুসলিম,ও মিশকাত) । পুত্র সন্তান লাভের দোয়া ও আমল

হযরত আলী রাদিয়াল্লাহু তায়ালা আনহু বলেন, যে ব্যাক্তি সহবাসের ইচ্ছা করে, তার নিয়ত যেন এমন হয় যে, আমি ব্যাভিচার থেকে দূরে থাকবো। আমার মন এদিক ওদিক ছুটে বেরাবে না আর জন্ম নিবে নেককার ও সৎ সন্তান। এই নিয়তে সহবাস করলে তাতে সওয়াব তো হবেই সঙ্গে সঙ্গে নেক উদ্দেশ্য ও পূরণ হবে। সহবাসের শেষে দোয়া
দোয়াটি হলো -- " বিসমিল্লাহি আল্লাহুম্মা জান্নিবিনাস শাইত্বানা  ওয়া জান্নিবিশ শাইত্বানা মা রজাকতানা।" দোয়াটি আবারো বলছি - "বিসমিল্লাহি আল্লাহুম্মা জান্নিবিনাস শাইত্বানা ওয়া জান্নিবিশ শাইত্বানা মা রজাকতানা।" ( সহবাসের আগে ও পরের দোয়া

দোয়াটির অর্থ - হে আল্লাহ! তোমার নামে আরম্ভ করছি, তুমি আমাদের নিকট হতে শয়তানকে দূরে রাখ । আমাদের এই মিলনের ফলে যে সন্তান দান করবে, টা হতেও শয়তানকে দূরে রাখ। আল্লাহ তায়ালা আমাদেরকে এই আমলটি করার তৌফিক দান করুক । আমিন । 10 Minute Madrasah

Post a Comment

কমেন্টে স্প্যাম লিংক দেওয়া থেকে বিরত থাকুন

Previous Post Next Post